নবম শ্রেণীর জীবন বিজ্ঞান অধ্যায় 3 : জৈবনিক প্রক্রিয়া এর প্রশ্ন-উত্তর মক টেস্ট তৈরি চলছে। সাবস্ক্রাইব করুন

[QnA] মানুষের শরীর ক্লাস VI | Class 6 Poribesh Chapter 8 | প্রশ্ন উত্তর ক্লাস সিক্স

মানুষের শরীর ক্লাস VI | Class 6 Poribesh Chapter 8 | প্রশ্ন উত্তর ক্লাস সিক্স | মানুষের হৃৎপিণ্ড , ফুসফুস , অস্থি সন্ধি প্রশ্ন উত্তর
Class 6 Poribesh Chapter 8

তুমি কি ক্লাস সিক্সে পড়ো? তুমি কি পরিবেশ ও বিজ্ঞান বইয়ের অধ্যায় ৮ : মানুষের শরীর এ প্রশ্ন উত্তর খুঁজছো? তাহলে তুমি ঠিক জায়গায় এসেছো।

1. মানুষের যেখানে হৃদপিণ্ড অবস্থিত সেই জায়গাটি হল - (a) বুকের সামনে ডান দিকে (b) বুকের পেছনে ডান দিকে (c) বুকের পেছনে বাঁ দিকে (d) বক্ষাস্থির পিছন দিকে
উত্তর : (d) বক্ষাস্থির পিছন দিকে
32. হৃদপিন্ডের প্রকোষ্ঠ সংখ্যা হল – 1 টি / 2 টি/ 3 টি / 4 টি
উত্তর : 4 টি
33. বাতাস থেকে অক্সিজেন টেনে নেয় – হৃদপিণ্ড / বৃক্ক / ফুসফুস / যকৃত
উত্তর : ফুসফুস
34. বল ও সকেট সন্ধি দেখা যায় - হাঁটুতে / মেরুদন্ডে / কোমরে / কব্জিতে
উত্তর : কোমরে
35. অবিশুদ্ধ রক্ত হল - (a) কেবল যে রক্তে CO2 থাকে (b) যে রক্তে O2 এর তুলনায় CO2 বেশি থাকে। (c) যে রক্তে কেবল O2 থাকে (d) যে রক্তে CO2 এর তুলনায় O2 বেশি থাকে
উত্তর : (b) যে রক্তে O2 এর তুলনায় CO2 বেশি থাকে।
36. মানুষের বুড়ো আঙ্গুলে যে ধরনের অস্থি সন্ধি দেখা যায় সেটি হল – পিভট সন্ধি / হিঞ্জ সন্ধি / স্যাডল সন্ধি / বল ও সকেট সন্ধি
উত্তর : স্যাডল সন্ধি
37. সারা শরীর থেকে ঊর্ধ্ব ও নিম্ন মহা শিরা দিয়ে অবি শুদ্ধ রক্ত হৃদপিণ্ডের যে প্রকোষ্ঠে পৌঁছায় সেটি হল – ডান নিলয় / বাম নিলয় / ডান অলিন্দ / বাম অলিন্দ
উত্তর : ডান অলিন্দ
38. রক্ত জমাট বাঁধতে সাহায্য করে – শ্বেত রক্তকণিকা / প্লাজমা / অনুচক্রিকা / রিবস
উত্তর : অনুচক্রিকা
39. বিভিন্ন রোগের জীবাণু থেকে শরীরকে রক্ষা করে রক্তের - লোহিত রক্ত কণিকা / শ্বেত রক্তকণিকা / অনুচক্রিকা / রক্ত রস
উত্তর : শ্বেত রক্তকণিকা বা WBC
40. হৃদপিন্ডের সবচেয়ে বড় কুঠুরিটি হলো - ডান অলিন্দ / বাম অলিন্দ / বাম নিলয় / ডান নিলয়
উত্তর : বাম নিলয়।
41. আমাদের মুখের লালায় জীবাণু ধ্বংসকারী যে পদার্থটি থাকে, তা হল - হাইড্রোক্লোরিক অ্যাসিড / লাইসোজাইম / ইনসুলিন / টায়ালিন
উত্তর : লাইসোজাইম
42. শরীরে পাহারাদার বা সৈন্যের কাজ করে - লোহিত রক্তকণিকা / প্লাজমা / অনুচক্রিকা / শ্বেত রক্তকণিকা
উত্তর : শ্বেত রক্তকণিকা (WBC)
43. সারা দেহে বিশুদ্ধ রক্ত ছড়িয়ে পড়ে যার মাধ্যমে সেটি হল - মহা ধমনী/ ফুসফুসীয় ধমনী/ ঊর্ধ্ব মহাশিরা / নিম্ন মহাশিরা
উত্তর : মহাধমনী। মনে রাখবে: মহাধমনী দ্বারা বাম নিলয় থেকে রক্ত সারা শরীরে ছড়িয়ে পড়ে।
44. রক্তে অবস্থিত প্রোটিন হল - গ্লোবিউলিন / ইউরিয়া / ইউরিক অ্যাসিড / বিলিরুবিন
উত্তর : গ্লোবিউলিন
45. মানব হৃদপিন্ডে কপাটিকার সংখ্যা - 2টি তl/ 3টি / 4টি / 5টি
উত্তর : 5 টি
46. রক্তের জলীয় অংশকে বলে - প্লাজমা / রক্তকণিকা / লসিকা / হিমোগ্লোবিন
উত্তর : প্লাজমা বা রক্তরস
47. ফুসফুস থেকে O2 যুক্ত রক্ত এসে পৌঁছায় হৃদপিন্ডের - ডান অলিদ / ডান নিলয়ে / বাম নিলয়ে / বাম অলিন্দে
উত্তর : বাম অলিন্দে।
48. পিঠের মাছ বরাবর যে শক্ত হাড় থাকে তাকে বলে - বক্ষাস্থি / শিরদাঁড়া / নিলয় / ফিমার
উত্তর : শিরদাঁড়া
49. সকল রোগ প্রতিরোধী উপাদান যা দ্বারা গঠিত সেটি হল - ফ্যাট / প্রোটিন / ভিটামিন /কার্বোহাইড্রেট
উত্তর : প্রোটিন
50. ডান- ফুসফুসে কয়টি খণ্ড আছে? 2টি / 4টি / 3টি
উত্তর : ডান ফুসফুসে 3 টি আছে । মনে রাখবে: বাম ফুসফুসে দুটি খন্ড আছে।
51. হৃদপিন্ডের ওপরের ডান দিকের কুঠুরির নাম ডান _____ ।
উত্তর : অলিন্দ
52. এক একটা ফুসফুসে প্রায় ১০ কোটি ____ থাকে।
উত্তর : বায়ু থলি
53. সচল অস্থিসন্ধিতে দুটো হাড় এক অন্যের সঙ্গে _____ দিয়ে বাধা থাকে।
উত্তর : লিগামেন্ট
54. হৃদপিন্ডের পেশিকে বলা হয় ____ ।
উত্তর : হৃদপেশি
55. পেশির সঙ্গে অস্থিকে যুক্ত করে ____ ।
উত্তর : টেনডন।
56. বুকের মাঝখানে যে শক্ত হাড় থাকে তাকে ____ বলে।
উত্তর : বক্ষাস্থি বা Sternum
57. বুক ও পেটের মাঝখানে ___ পেশী থাকে।
উত্তর : মধ্যচ্ছদা বা ডায়াফ্রাম।
58. শরীরের কোথাও কেটে গেলে রক্ত জমাট বাধতে সাহায্য করে ____ ।
উত্তর : অনুচক্রিকা।
59. মানুষের দেহে অস্থির সংখ্যা ___ টি ।
উত্তর : 206 টি
60. ডান অলিন্দ ও ডান নিলয়ের মাঝখানে থাকে ____ কপাটিকা।
উত্তর : ত্রিপত্র কপাটিকা
61. হাতের পেশিকে বলা হয় ____ ।
উত্তর : কঙ্কাল পেশী।
62. পাকস্থলীর পেশী হলো ____ ।
উত্তর : আন্তরযন্ত্রীয় পেশী
63. সত্য না মিথ্যা: রক্তের বেশিরভাগ অংশই হল জল।
উত্তর : সত্য ব্যাখ্যা: রক্তের প্রায় শতকরা ৯০ শতাংশ জলীয়। একে রক্তরস বলে। [ পাঠ্যবই পৃষ্ঠা 111 ]
64. সত্য না মিথ্যা : অনুচক্রিকা শরীরের আনাচে-কানাচে অক্সিজেন পৌঁছে দেয়।
উত্তর : মিথ্যা। ব্যাখ্যা: লোহিত রক্তকণিকা শরীরের আনাচে-কানাচে অক্সিজেন পৌঁছে দেয়।
65. সত্য না মিথ্যা: বাম ফুসফুস তিনটি খন্ড নিয়ে গঠিত।
উত্তর : মিথ্যা। ব্যাখ্যা: বাম ফুসফুস দুটি খণ্ড নিয়ে গঠিত।
66. সত্য না মিথ্যা: লিগামেন্ট পেশীর সঙ্গে হাড়কে যুক্ত করে।
উত্তর : মিথ্যা। ব্যাখ্যা: লিগামেন্ট হাড়ের সঙ্গে হাড়কে যুক্ত করে। টেনডন হাড়ের সঙ্গে পেশিকে যুক্ত করে।
67. সত্য না মিথ্যা : দৈত্যাকার দেহ গঠনকে ডোয়ারফিজম বলে।
উত্তর : মিথ্যা। ব্যাখ্যা: দৈত্যাকার দেহ গঠনকে জাইগ্যান্টিজম বলে।
68. সত্য না মিথ্যা : শরীরে বাতাস গ্রহণ করার পদ্ধতিকে বলা হয় প্রশ্বাস।
উত্তর : সত্য
69. রক্তের প্রধান দুটি অংশ কি কি?
উত্তর : রক্তরস ও রক্তকণিকা।
70. রক্তের কোন উপাদান দেহের বিভিন্ন অংশে অক্সিজেন পৌঁছে দিতে সাহায্য করে?
উত্তর : লোহিত রক্তকণিকা বা RBC
71. মানবদেহের কোথায় অচল অস্থিসন্ধি দেখা যায়?
উত্তর : মাথার খুলিতে।
72. কোন রক্তকণিকা রক্ত জমাট বাঁধতে সাহায্য করে?
উত্তর : অনুচক্রিকা
73. আমাদের হাতের পাঁচটি আঙ্গুলে কটা হাড় আছে?
উত্তর : 14 টি।
74. বল ও সকেট সন্ধি কোথায় দেখা যায়?
উত্তর : কাঁধে ও কোমরে।
75. হৃদপিন্ডের অবস্থান লেখো।
উত্তর : হৃৎপিণ্ড থাকে বক্ষাস্থি ও শিরদাঁড়ার মাঝের অংশে। [ পাঠ্যবই পৃষ্ঠা 107 ]
76. জন্মের সময় একজন শিশুর শরীরে কটি হাড় বা অস্থি থাকে?
উত্তর : প্রায় 300 টি। [ পাঠ্যবই পৃষ্ঠা 120 ]
77. দাঁতের সাদা ছোপের কারণ কি?
উত্তর : ফ্লুওরাইড এর বিষক্রিয়া। [ পাঠ্য বই পৃষ্ঠা 130 ]
78. দুটি হিঞ্জ অস্থি সন্ধির উদাহরণ দাও।
উত্তর : হাটু ও কোনুই।
79. একটি আন্তরযন্ত্রীয় পেশীর নাম লেখ।
উত্তর : হৃদপেশী
80. ভিটামিন B এর অভাবে কি রোগ হয়?
উত্তর : ঠোঁটের কোণে ঘা ও জিভে ঘা হয়।
81. কোন ভিটামিনের অভাবে মাড়ি ফোলে ও ফেটে রক্ত পড়ে?
উত্তর : ভিটামিন C
82. ত্রিপত্র কপাটিকা কোথায় থাকে?
উত্তর : ডান অলিন্দ ও ডান নিলয়ের মধ্যে।
83. হৃদপিন্ডের বাইরের আবরণীর নাম কি?
উত্তর : পেরিকার্ডিয়াম।
84. দুটি শ্বাস রঞ্জক পদার্থের নাম লেখ।
উত্তর : হিমোগ্লোবিন, হিমোসায়ানিন।
85. পালমোনারি কপাটিকা হৃদপিন্ডের কোথায় দেখতে পাওয়া যায়?
উত্তর : ডান নিলয় ও ফুসফুস ধমনীর সংযোগস্থলে।
86. একজন স্বাভাবিক মানুষের হৃদস্পন্দন মিনিটে কতবার হয়?
উত্তর : 72- 80 বার
87. মানুষের দৈত্যাকার গঠন ও বামনাকার গঠনকে কি বলা হয়?
উত্তর : দত্যাকার গঠনকে জায়গাটিজম এবং বামনাকার গঠনকে ডোয়ার্ফিজম বলে।
88. পঞ্জর পেশী কোথায় থাকে?
উত্তর : আমাদের পাঁজরের ফাঁকে।
89. হৃদপিন্ডের কোন প্রকোষ্ঠ থেকে অক্সিজেন সমৃদ্ধ রক্ত সারা দেহে প্রেরিত হয়?
উত্তর : বাম নিলয় থেকে রক্ত সারা শরীরে ছড়িয়ে পড়ে। মহাধমনী দ্বারা এই রক্ত ছড়িয়ে পড়ে।
90. কোন প্রকার রক্ত কণিকায় হিমোগ্লোবিন থাকে?
উত্তর : লোহিত রক্ত কণিকায়।
91. অস্থিসন্ধি কাকে বলে?
উত্তর : দুটি প্রতিবেশী অস্থি যেখানে একে অপরের সঙ্গে লিগামেন্ট দিয়ে বাধা থাকে সেই জায়গাটাকেই অস্থিসন্ধি বা হাড়ের জোড় বলে।
92. দ্বিপত্র কপাটিকার অবস্থান লেখো।
উত্তর : বাম অলিন্দ ও বাম নিলয়ের মাঝে।
93. পিভট সন্ধি কোথায় থাকে?
উত্তর : গলায়
94. অচল অস্থিসন্ধি কোথায় দেখা যায়?
উত্তর : মাথার খুলিতে
95. ফুসফুসের রং কেমন?
উত্তর : কালচে গোলাপি।
96. টেনডনের এর কাজ কি?
উত্তর : টেনডন হল এক ধরনের স্থিতিস্থাপক দড়ির ন্যায় অংশ যা মাংসপেশীকে উপর বা নিচের অস্থির সঙ্গে যুক্ত রাখে।
97. মানবদেহে কিভাবে ফুসফুস থেকে বিশুদ্ধ রক্ত বাম নিলয়ে পৌঁছায়?
উত্তর : প্রথমে ফুসফুস থেকে বিশুদ্ধ রক্ত ফুসফুস শিরার মাধ্যমে বাম অলিন্দে পৌঁছায়। বাম অলিন্দ থেকে এই বিশুদ্ধ রক্ত দ্বি-পত্রক কপাটিকার ভিতর দিয়ে বাম নিলয়ে পৌঁছায়।
98. জল বা খাবারে মিশে থাকা জীবাণুদের ধ্বংস করার জন্য আমাদের শরীরে কি কি ব্যবস্থা আছে?
উত্তর : জল বা খাবারে মিশে থাকা জীবাণুকে মারবার জন্য আমাদের লালাই লাইসোজাইম নামে উৎসেচক থাকে। এটি জীবাণু ধ্বংসকারী রাসায়নিক পদার্থ। পাকস্থলীতে হাইড্রোক্লোরিক অ্যাসিড থাকে। এটিও জীবাণুকে ধ্বংস করে।
99. ফুসফুসের কাজ কি?
উত্তর : ফুসফুস শ্বাস-প্রশ্বাসে সাহায্য করে। বাতাস থেকে অক্সিজেনকে রক্তে পৌঁছে দেয়। আবার শরীরে তৈরি হওয়া কার্বন ডাই অক্সাইড কে রক্ত থেকে টেনে শরীরের বাইরে বের করে দেয়।
100. শিরা ও ধমনী কাকে বলে?
উত্তর : হৃদপিণ্ড থেকে রক্ত সারা দেহে যে নলগুলো দিয়ে যায় তার নাম হলো ধমনী। তেমনি সারা দেহ থেকে আবার যে নল গুলো দিয়ে রক্ত হৃৎপিণ্ডে ফিরে আসে সেগুলোর নাম শিরা। [ পাঠ্য বই পৃষ্ঠা 107 ]
101. দেহভর সূচকের সূত্রটি লেখ। স্বাভাবিক ওজনসম্পন্ন ব্যক্তির দেহভর সূচকের মান কত?
উত্তর : দেহভর সূচক = ওজন ÷ (উচ্চতা)² একজন স্বাভাবিক ওজনসম্পন্ন ব্যক্তির দেহভর সূচকের মান 18.5 থেকে 25 এরমধ্যে।
102. সিস্টোল ও ডায়াস্টোল কাকে বলে?
উত্তর : হৃৎপিণ্ডের পেশীর সংকোচন কে সিস্টোল এবং হৃৎপিণ্ডের পেশী শিথিল হয়ে প্রসারিত ডায়াস্টোল বলা হয়।
103. ফুসফুসীয় শিরা ও ফুসফুসীয় ধমনীর মধ্যে মূল পার্থক্যটি কি?
উত্তর : ফুসফুসীয় শিরা অক্সিজেনযুক্ত বিশুদ্ধ রক্ত পরিবহন করে। আর ফুসফুসীয় ধমনীর কার্বন ডাই অক্সাইড যুক্ত দূষিত রক্ত বহন করে।
104. ফুসফুসের সমস্যার দুটি লক্ষণ লেখক।
উত্তর : ভোরবেলা দম নিতে কষ্ট হওয়া। শীতকালে শ্বাস নিতে কষ্ট হওয়া। [ পাঠ্যবই পৃষ্ঠা 114 ]
105. অস্থির কাজ কি?
উত্তর : অস্থির কাজ: ফুসফুস, হৃৎপিণ্ড, পাকস্থলী ইত্যাদিকে রক্ষা করা। দেহকে নির্দিষ্ট আকৃতি ও কাঠামো প্রদান করা।
106. রক্ত রসের কাজ লেখ।
উত্তর : রক্তরস রক্তকে তরল বানায়। এর ফলে রক্ত খাবার হজম হওয়ার পর তৈরি হওয়া ছোট কণা গুলি খাদ্যনালী থেকে বয়ে নিয়ে যেতে পারে। শরীরের নানা জায়গা থেকে তৈরি হওয়া আদরকারী যৌগগুলো বয়ে নিয়ে ফুসফুস, বৃক্ক ইত্যাদি জায়গায় পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হয়।
107. রক্তের কাজ কি?
উত্তর : রক্ত খাদ্যকে দেহের বিভিন্ন অংশে পৌঁছে দেয়। রক্তের মধ্যে থাকা লোহিত রক্ত কণিকা অক্সিজেনকে দেহের বিভিন্ন অংশে পৌঁছে দেয়। রক্তের মধ্যে থাকা শ্বেত রক্তকণিকা রোগ জীবাণুর বিরুদ্ধে লড়াই করে।
108. মানবদেহে প্রশ্বাস আর বিশ্বাস প্রক্রিয়া কিভাবে ঘটে?
উত্তর : মধ্যচ্ছদা নামক পেশীর সাহায্যে যখন বুকের খাচা ফুলিয়ে তোলা হয় তখন বাতাস ফুসফুসের ভিতরে ঢোকে। একে বলে প্রশ্বাস। আবার এই পেশীগুলো ঢিল দিলে বুকের খাঁচা চুপসে যায় আর বাতাস ভেতর থেকে বাইরে বেরিয়ে যায় । একে বলে নিশ্বাস। [ পাঠ্যবই পৃষ্ঠা 115 ]
109. তোমার বন্ধুর ওজন 60 কেজি আর উচ্চতা 4.5 ফুট । তোমার বন্ধুর দেহভর সূচক (BMI) নির্ণয় করো। তোমার বন্ধুর দেহভর সূচক সম্বন্ধে তোমার মতামত লেখো।
উত্তর : 1 ফুট = 0.3048 মিটার । অর্থাৎ 4.5 ফুট = 4.5 × 0.3 মিটার = 1.35 মিটার। অতএব, বন্ধুর দেহভর সূচক = ওজন ÷ (উচ্চতা)² = 60 ÷ (1.35×1.35) = 32.92 30 - 40 দেহভর সূচক এর অর্থ হল মোটা হয়ে যাওয়া বা স্থূলত্ব। অর্থাৎ আমার বন্ধুর দেহভর সূচক বেশি।
110. "মানবদেহে নানা কারণে অস্বাভাবিক বিকাশ ঘটতে পারে" - কারণগুলি কি কি?
উত্তর : কখনো যথেষ্ট খাবার না পেলে, কখনো বা বেশি খাবার খেলে, কখনো বা কোন রোগের বা বংশগত অস্বাভাবিকতার কারণে তা ঘটতে পারে। রক্তে কোন রাসায়নিক পদার্থের ক্ষরণ কম বা বেশি ঘটলে অস্বাভাবিক বিকাশ ঘটতে পারে।
111. পার্থক্য লেখ: শিরা ও ধমনী
উত্তর : প্রাচীর: শিরার প্রাচীর পাতলা কিন্তু ধমনীর প্রাচীর পুরু। কপাটিকা: শিরায় কপাটিকা আছে কিন্তু ধমনীতে কপাটিকা নেই। স্পন্দন: শিরায় স্পন্দন নেই কিন্তু ধমনিতে স্পন্দন আছে। রক্ত প্রবাহ: শিরায়ে রক্ত প্রবাহ ধীরগতিতে হয় কিন্তু ধমনীতে রক্ত প্রবাহ দ্রুত গতিতে হয়। রক্ত বহন: শিরা দূষিত রক্ত বহন করে (ব্যতিক্রম ফুসফুসীয় শিরা। কিন্তু ধমনী বিশুদ্ধ রক্ত বহন করে ( ব্যতিক্রম ফুসফুসীয় ধমনী ) ।
112. স্বাভাবিক পুষ্টির জন্য আমাদের কি কি খাদ্য গ্রহণ করা উচিত? ভালো স্বাস্থ্যের লক্ষণ গুলি কি কি? 1+2
উত্তর : স্বাভাবিক পুষ্টির জন্য পুষ্টিকর খাবার গ্রহণ করা উচিত। ভালো স্বাস্থ্যের লক্ষণ গুলি হল: ওজন হবে স্বাভাবিক। শরীরের কোথাও ঘা থাকবে না। দেহ হবে সুঠাম এবং শক্তিময়। হাত পা হবে সোজা। দেহভর সূচক হবে স্বাভাবিক। [ পাঠ্য বই পৃষ্ঠা 131 ]
113. আমাদের শরীরে পুঁজ কিভাবে গঠিত হয়?
উত্তর : ফোড়া বা কাটা জায়গার মধ্য দিয়ে জীবাণু আমাদের শরীরে প্রবেশ করে। সেই জীবাণুকে রক্তের মধ্যে থাকা শ্বেত রক্তকণিকা মেরে ফেলে। যা সাদা তরলের মত পুঁজ তৈরি করে এবং চামড়া থেকে বেরিয়ে আসে।
114. তোমার বন্ধুর ওজন 50 কেজি এবং উচ্চতা 0.9 মিটার। তাহলে ওই বন্ধুর দেহভর সূচক থেকে বন্ধুর সুস্থতা সম্পর্কে তোমার কি ধারণা হলো তা লেখো।
উত্তর : বন্ধুর দেহভর সূচক = ওজন ÷ উচ্চতা² = 50 ÷ (0.9×0.9) = 50 ÷ 0.81 = 61.72 দেহভর সূচক 30 - 40 বা তার বেশি হলে মোটা হয়ে যাওয়া বা স্থূলত্ব বোঝায়। অর্থাৎ আমার বন্ধুর দেহে নানান সমস্যা দেখা দিতে পারে।
115. রক্তের উপাদানগুলি কি কি?
উত্তর : রক্ত দুই ধরনের উপাদান দ্বারা গঠিত। যথা: রক্ত রস ও রক্তকণিকা। রক্ত কণিকা রয়েছে তিন ধরনের। যথা: লোহিত রক্তকণিকা, শ্বেত রক্ত কণিকা ও অনুচক্রিকা।
116. বাম স্তম্ভের সঙ্গে ডান স্তম্ভ মেলাও বাম স্তম্ভ ডান স্তম্ভ (i) ব্রোঞ্জ (a) স্টপওয়াচ (ii) বলের CGS একক (b) বল (iii) সময় (c) অস্থিসন্ধি (iv) চাপ × ক্ষেত্রফল (d) সংকর ধাতু (v) লিগামেন্ট (e) ডাইন
উত্তর : (i) → d (ii) → e (iii) → a (iv) → b (v) → c
117. বাম স্তম্ভের সঙ্গে ডান স্তম্ভ মেলাও বাম স্তম্ভ ডান স্তম্ভ (i) ফসিল পাওয়া যায় (a) সবুজ উদ্ভিদ (ii) একটি মৌলিক রাশি হল (b) পাললিক শিলায় (iii) ডান অলিন্দ ও ডান (c) ভর নিলয়ের সংযোগস্থলে থাকে (iv) প্রাণীর খাদ্যের উৎস হল (d) ত্রিপত্র কপাটিকা (v) পৃথিবীতে শক্তির উৎস (e) সূর্য
উত্তর : (i) → b (ii) → c (iii) → d (iv) → a (v) → e
118. বাম স্তম্ভের সঙ্গে ডান স্তম্ভ মেল বাম স্তম্ভ ডান স্তম্ভ (i) জীবাশ্ম জ্বালানি (a) উৎপাদক (ii) ক্রোমশাখা (b) ক্ষয় (iii) সবুজ উদ্ভিদ (c) কয়লা (iv) ঘর্ষণ (d) ফুসফুস
উত্তর : (i) → c (ii) → d (iii) → a (iv) → ক্ষয়
119. মানব হৃদপিন্ডের লম্বচ্ছেদের চিত্র অঙ্কন কর।
উত্তর : বই দেখো

আরও পড় : ক্লাস সিক্স পরিবেশ চ্যাপ্টার ১ মক টেস্ট

About the Author

Teacher , Blogger, Edu-Video Creator, Web & Android App Developer, Work under Social Audit WB Govt.

Post a Comment

Please Comment , Your Comment is Very Important to Us.

All Chapter Contents

Cookie Consent
We serve cookies on this site to analyze traffic, remember your preferences, and optimize your experience.
Oops!
It seems there is something wrong with your internet connection. Please connect to the internet and start browsing again.
AdBlock Detected!
We have detected that you are using adblocking plugin in your browser.
The revenue we earn by the advertisements is used to manage this website, we request you to whitelist our website in your adblocking plugin.
Site is Blocked
Sorry! This site is not available in your country.