ষষ্ঠ শ্রেণীর পরিবেশ ও বিজ্ঞান বইয়ের তৃতীয় অধ্যায় : মৌলিক, যৌগিক ও মিশ্র পদার্থ - এর MCQ প্রশ্ন উত্তর পাবে।

ক্লাস সিক্স পরিবেশ ও বিজ্ঞান অধ্যায় তিন মক টেস্ট

ষষ্ঠ শ্রেণি পরিবেশ ও বিজ্ঞান এর অধ্যায় ৩ : মৌলিক, যৌগিক ও মিশ্র পদার্থ এর মক টেস্ট । MCQ প্রশ্ন উত্তর

এই অধ্যায়ের তোমরা ষষ্ঠ শ্রেণীর পরিবেশ ও বিজ্ঞান বইয়ের তৃতীয় অধ্যায় : মৌলিক, যৌগিক ও মিশ্র পদার্থ - এর MCQ প্রশ্ন উত্তর পাবে।

0/75
1 নিচের কোনটি বস্তু নয়?
প্লাস্টিকের মগ
প্লাস্টিক
লোহার বালতি
রবারের টায়ার
প্লাস্টিক বস্তু নয়। ঠিক হলো একপ্রকার কঠিন পদার্থ যা দিয়ে বিভিন্ন বস্তু তৈরি করা হয়।
2 পদার্থের কয়টি অবস্থা?
একটি
দুইটি
তিনটি
পাঁচটি
পদার্থের আরও একটি অবস্থা রয়েছে যেটিকে প্লাজোমা অবস্থা বলে। তবে সাধারণত পদার্থের তিনটি অবস্থা বলা হয়। পরীক্ষায় অপশনে যদি চারটি থাকে তাহলে চারটি লিখতে হবে।
3 উপর থেকে ফেললে ঢং শব্দ করে
ধাতু
কাঠ
কয়লা
কাগজ
উপর থেকে ফেললে কেবল ধাতু ঢং শব্দ করে। তাই কাঠ, কয়লা ও কাগজ ঢং শব্দ করে না।
4 তড়িৎ বইতে পারে
অধাতু
ধাতু
কাঠ
প্লাস্টিক
অধাতব পদার্থ তড়িৎ বইতে পারেনা। ব্যতিক্রমী হিসাবে গ্রাফাইট অধাতু হলেও তড়িৎ বইতে পারে।
5 তাপ পরিবহন করতে পারে অর্থাৎ তাপের সুপরিবাহী হলো
প্লাস্টিক
তামা
কয়লা
কাগজ
সমস্ত ধাতু সুপরিবাহী তাই তামা তাপের সুপরিবাহী।
6 নিচের কোনটি বিশুদ্ধ পদার্থ
বারুদ
বায়ু
জল
চিনির শরবত
জল বিশুদ্ধ পদার্থ যা যৌগিক পদার্থ। বাকি তিনটি এখানে মিশ্র পদার্থ।
7 নিচের কোনটি বিশুদ্ধ পদার্থ নয়?
নাইট্রোজেন
অক্সিজেন
জলীয় বাষ্প
মধু
মধু একটি মিশ্র পদার্থ। এর মধ্যে জল এবং গ্লুকোজ থাকে।
8 নিচের কোনটি মিশ্র পদার্থ?
প্লাস্টিক
কোলড্রিংক
জল
চিনি
কোলড্রিংস এর মধ্যে জল চিনি ও কার্বন ডাই অক্সাইড মেশানো থাকে। বাকি তিনটি এখানে যৌগিক পদার্থ।
9 নিচের কোনটি মিশ্র পদার্থ?
অক্সিজেন
লোহা
তামা
বাজির মশলা
বাজির মসলাতে বন্দুক কয়লার গুঁড়ো সল্ট পিটার ইত্যাদি থাকে। বাকি তিনটি উপাদানই মৌলিক পদার্থ।
10 নিচের কোন গ্যাস নিজে জ্বলে না কিন্তু জ্বলতেসাহায্য করে?
কার্বন ডাই-অক্সাইড
হাইড্রোজেন
নাইট্রোজেন
অক্সিজেন
হাইড্রোজেন গ্যাস নিজে জ্বলে। অক্সিজেন গ্যাস জল তে সাহায্য করে কিন্তু নিজে জ্বলে না। হাইড্রোজেন গ্যাস নিজে জ্বলেও না আবার জ্বলতেও সাহায্য করে না।
11 জল কি ধরনের পদার্থ?
মিশ্র পদার্থ
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
অবিশুদ্ধ পদার্থ
জল হল একপ্রকার সমযোজী তরল অজৈব যৌগিক পদার্থ। জলের তড়িৎ বিশ্লেষণ করলে হাইড্রোজেন ও অক্সিজেন পাওয়া যায়। সহজে জলকে পৃথক করা যায় না কিন্তু রাসায়নিক প্রক্রিয়ার মাধ্যমে পৃথক করা যায়।
12 লোহা কি ধরনের পদার্থ?
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
কোনোটিই নয়
3 জলের মৌলিক উপাদান হলো -
অক্সিজেন ও নাইট্রোজেন
হাইড্রোজেন ও কার্বন
অক্সিজেন ও নাইট্রোজেন
অক্সিজেন ও হাইড্রোজেন
জলের তড়িৎ বিশ্লেষণ করলে তিন ভাগ জল থেকে দুই ভাগ হাইড্রোজেন ও এক ভাগ অক্সিজেন উৎপন্ন হয়।
4 নিচের কোন বক্তব্যটি সত্য নয়?
অক্সিজেন বর্ণহীন গ্যাস
হাইড্রোজেন বর্ণহীন গ্যাস
হাইড্রোজেন গন্ধহীন গ্যাস
হাইড্রোজেন নিজে জ্বলে না
5 নিচের কোন বক্তব্যটি সত্য?
হাইড্রোজেন বায়ুর চেয়ে ভারী
অক্সিজেন বাতাসের চেয়ে ভারী
হাইড্রোজেন জ্বলতে সাহায্য করে
অক্সিজেন নিজে জ্বলে
6 কার্বন ও অক্সিজেনের বিক্রিয়ায় তৈরি হয়
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
কোনোটিই নয়
অক্সিজেন ও কার্বনের বিক্রিয়ায় কার্বন-ডাই-অক্সাইড তৈরি হয়। আমরা যখন কাঠের আগুন জ্বালাই তখন কাঠের কার্বন বাতাসের অক্সিজেনের সাথে বিক্রিয়া করে কার্বন-ডাই-অক্সাইড গ্যাস তৈরি করে।
7 ম্যাগনেসিয়াম হলো
বিশুদ্ধ ও যৌগিক পদার্থ
বিশুদ্ধ ও মৌলিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
অধাতব পদার্থ
ম্যাগনেসিয়াম হলো বিশুদ্ধ পদার্থ। ম্যাগনেসিয়াম এক প্রকার প্রাকৃতিক মৌলিক পদার্থ। ম্যাগনেসিয়াম হলো ধাতু। ম্যাগনেসিয়ামকে বাতাসে পোড়ালে যে সাদা ধোয়া তৈরি হয় তাকে ম্যাগনেসিয়াম অক্সাইড বলে। ম্যাগনেসিয়াম অক্সাইড হলো বিশুদ্ধ যৌগিক পদার্থ।
8 সালফার হল
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
ধাতু
9 কাসা হল
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
বিশুদ্ধ পদার্থ
কোনোটিই নয়
কাসা হল মিশ্র পদার্থ। এটি এক ধরনের সংকর ধাতু। ভাল কাঁসার মধ্যে ৭৮ শতাংশ তামা ও ২২ শতাংশ টিন থাকে৷ দু’টি ধাতুকে প্রায় ৭০০ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডে উত্তপ্ত করে মেশালে কাঁসা উৎপন্ন হয়৷
10 অ্যালুমিনিয়াম হল
মৌলিক ও অধাতু
যৌগিক পদার্থ
মৌলিক ও ধাতু
কোনোটিই নয মিশ্র পদার্থ।
11 খাবার লবণ হলো
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
ধাতু
12 পাথুরে চুন বা ক্যালসিয়াম অক্সাইড হলো
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
ধাতব পদার্থ
13 নিচের কোনটি অধতু
বারুদ
পাথুরে চুন
কার্বন ডাই-অক্সাইড
অক্সিজেন
মৌলিক পদার্থ গুলিকে দুইটি ভাগে ভাগ করা হয়। প্রথমত ধাতু ও দ্বিতীয়তঃ অধাতু। তাই এই ক্ষেত্রে আমরা মৌলিক পদার্থ গুলি এর মধ্যে থেকে অক্সিজেনকে পেলাম যেটি অধাতু। বাকি তিনটি বিকল্প যৌগিক পদার্থ ও মিশ্র পদার্থ।
14 পদার্থ হল -
কাঠের চেয়ার
লোহার চাবি
পিতল
স্টিলের থালা
পিতল হল পদার্থ। পিতল হল মিশ্র পদার্থ। বাকি তিনটি হল বস্তু।
15 প্লাস্টিক হল -
কঠিন পদার্থ
তরল পদার্থ
প্লাজমা
গ্যাসীয় পদার্থ
16 ধাতুর বৈশিষ্ট্য নয় -
আলো পড়লে চকচক করে
ভঙ্গুর প্রকৃতির
তাপ ও তড়িৎ এর সুপরিবাহী
প্রসারণশীল
17 যে বস্তুর উপরের তলে আলো পড়লে চকচক করে না -
হিরে
কাঠকয়লা
পিতল
তামা
18 অধাতু হল -
লোহা
তামা
গ্রাফাইট
রুপো
গ্রাফাইট অধাতু হলেও তাপ ও তড়িৎ পরিবহন করতে পারে। হীরে অধাতু হলেও তাপ পরিবহন করতে পারে।
19 ব্রোমিন হল -
তরল ধাতু
গ্যাসীয় অধাতু
তরল অধাতু
কঠিন অধাতু
20 একটি ধাতু হল -
দস্তা
গন্ধক
অক্সিজেন
ফ্লুওরিন
দস্তাকে ইংরেজিতে জিংক বলা হয়। জিংক এর চিহ্ন Zn
21 কোনটি অধাতু কিন্তু তাপের সুপরিবাহী?
তামা
গ্রাফাইট
পারদ
অক্সিজেন গ্যাস
22 একটি নরম ধাতু হলো -
পারদ
সোডিয়াম
ব্রোমিন
তামা
সোডিয়াম একটি নরম ধাতু যা জলের সঙ্গে তীব্র বিক্রিয়া করে বিস্ফোরণ ঘটায়। পারদ হলুদ একটি তরল ধাতু।
23 ম্যাগনেসিয়াম হল একটি -
ধাতুকল্প
যৌগ
মৌল
অধাতু
24 লিথিয়াম একটি -
যৌগ
মিশ্রণ
ধাতু
অধাতু
লিথিয়াম এর সংকেত Li
25 কার্বন হল -
ধাতু
অধাতু
ধাতুকল্প
কোনোটিই নয়
যে পদার্থের মধ্যে ধাতু এবং অধাতু এই দুই ধরনের পদার্থের গুণ থাকে তাকে ধাতুকল্প বলে। যেমন আর্সেনিক ও অ্যান্টিমনি হল ধাতুকল্প।
26 মিথেন কি?
গ্যাস
তরল পদার্থ
কঠিন পদার্থ
প্লাজমা
মিথেন হলো একপ্রকার জৈব গ্যাস। মিথেন কার্বন এবং হাইড্রোজেন দ্বারা গঠিত।
27 কোনটি ধাতু?
অক্সিজেন
লোহা
কার্বন ডাই-অক্সাইড
নাইট্রোজেন
লোহা হল একপ্রকার ধাতু। লোহার সংকেত Fe
28 বায়ুতে যে উপাদানটি সবচেয়ে বেশি পরিমাণে থাকে তা হল -
নাইট্রোজেন
অক্সিজেন
জলীয় বাষ্প
কার্বন-ডাই-অক্সাইড
বায়ুতে উপস্থিত মৌলের শতকরা হার
নাইট্রোজেন : 78%
অক্সিজেন : 21%
জলীয় বাষ্প : 0.25%
কার্বন-ডাই-অক্সাইড: 0.039%
29 মিশ্র পদার্থের উদাহরণ হল
বায়ু
শরবত
দুধ
সবগুলি
30 কোনটি মৌল নয়?
তামা
কার্বন
অ্যামোনিয়া
সোনা
অ্যামোনিয়া একটি যৌগিক পদার্থ। অ্যামোনিয়া - হাইড্রোজেন ও নাইট্রোজেন দ্বারা গঠিত।
31 মৌলিক অণু হল
নুনের অণু
জলের অণু
নাইট্রোজেনের অণু
মিথেনের অণু
বাকি তিনটি পদার্থ যৌগিক পদার্থ। তাই বাকি তিনটি পদার্থের অণু যৌগিক অণু।
32 জলের মধ্যে দিয়ে বিদ্যুৎ পাঠিয়ে পরীক্ষাগারে যে দুটি গ্যাস পাওয়া যায় তা হল -
অক্সিজেন ও নাইট্রোজেন
হাইড্রোজেন ও নাইট্রোজেন
নাইট্রোজেন ও অক্সিজেন
হাইড্রোজেন ও অক্সিজেন
জলের তড়িৎ বিশ্লেষণ করলে হাইড্রোজেন ও অক্সিজেন পাওয়া যায়।
33 নিচের কোনটি যৌগিক পদার্থ ?
তামা
সোনা
পাথুরে চুন
রুপো
পাথরে চুন বা ক্যালসিয়াম অক্সাইড হলো যৌগিক পদার্থ যা ক্যালসিয়াম ধাতু ও অক্সিজেন অধাতব গ্যাস দ্বারা গঠিত।
34 জল একটি -
মৌলিক পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মিশ্র পদার্থ
কোনোটিই নয়
dice
জল একটি তরল যৌগিক পদার্থ। জল তৈরি হয় হাইড্রোজেন ও অক্সিজেনের রাসায়নিক বিক্রিয়ায়। একটি জলের অণুতে দুটি হাইড্রোজেন পরমাণু ও একটি অক্সিজেন পরমাণু থাকে।
35 পচা ডিমের গন্ধযুক্ত গ্যাস হল -
অ্যামোনিয়া
হাইড্রোজেন সালফাই
কার্বন-ডাই-অক্সাইড
নাইট্রোজেন
হাইড্রোজেন সালফাইড একটি ক্ষতিকারক গ্যাস। এর সংকেত H2S । পঁচা নর্দমা ও জলাভূমিতে উৎপন্ন হয়।
36 HCl এর সঙ্গে মার্বেল পাথরের গুড়োর বিক্রিয়ায় তৈরি হয় -
অ্যামোনিয়া
হাইড্রোজেন সালফাই
কার্বন-ডাই-অক্সাইড
নাইট্রোজেন
হাইড্রোক্লোরিক অ্যাসিড ও ক্যালসিয়াম কার্বনেট এর বিক্রিয়ায় হাইড্রোজেন সালফাইড তৈরি হয়।
37 হিলিয়াম হল -
মিশ্র পদার্থ
যৌগিক পদার্থ
মৌলিক পদার্থ
কোনোটিই নয়
হিলিয়াম হল একপ্রকার নিষ্ক্রিয় গ্যাস। হিলিয়ামের সংকেত He
38 নিচের কোনটি যৌগিক পদার্থ ?
তামা
সোনা
পাথুরে চুন
রুপো
পাথরে চুন বা ক্যালসিয়াম অক্সাইড হলো যৌগিক পদার্থ যা ক্যালসিয়াম ধাতু ও অক্সিজেন অধাতব গ্যাস দ্বারা গঠিত।
39 চিনি কোন কোন মৌল দ্বারা গঠিত ?
C, H, O
Ca, O, C
C, O
C, H, N
dice
চিনি একপ্রকার যৌগিক পদার্থ। চিনি কার্বন হাইড্রোজেন ও অক্সিজেন দ্বারা গঠিত। তিনি তড়িৎ অবিশ্লেষ্য পদার্থ অর্থাৎ চিনির জলীয় দ্রবণ তড়িৎ পরিবহন করে না।
40 মৌলিক পদার্থের ক্ষুদ্রতম কণা যা রাসায়নিক বিক্রিয়ায় অংশ নেয়, তাকে বলে
অণু
পরমাণু
প্রোটন
নিউট্রন
পরমাণু বা Atom রাসায়নিক বিক্রিয়ায় অংশ নেয়।
41 নিশাদল বলা হয় -
MgCl2
NaCl
NH4Cl
CaCl2
dice
অ্যামোনিয়াম ক্লোরাইডকে নিশাদল বলা হয়। এর আরেক নাম সল অ্যামোনিয়াক।
42 বর্ণহীন গন্ধহীন যে গ্যাসটি বায়ুর চেয়ে হালকা -
অক্সিজেন
নাইট্রোজেন
হাইড্রোজেন
কার্বন ডাই অক্সাইড
অক্সিজেন বায়ুর চেয়ে সামান্য ভারী। কার্বন ডাই অক্সাইড বাতাসের চেয়ে দেড়গুণ ভারী।
43 নিচের কোনটি আলাদা?
মৌলিক
গ্যাসীয়
তরল
কঠিন
গ্যাসীয় তরল ও কঠিন এই তিনটি হলো পদার্থের অবস্থা। মৌলিক হল পদার্থের ধরন।
44 বেরিয়ামের চিহ্ন হল -
Be
Ba
B
Br
Be হল বেরিলিয়ামের চিহ্ন । B হল বোরনের চিহ্ন। Br হলো ব্রোমিনের চিহ্ন।
45 K চিহ্ন দ্বারা প্রকাশ করা হয় কাকে?
পটাশিয়াম
কার্বন
কপার
ক্যালসিয়াম
পটাশিয়াম এর ল্যাটিন নাম Kalium। এই লাকির নামের প্রথম অক্ষর দিয়েই পটাশিয়ামের চিহ্ন। ১৮১৪ সালে সুইডেনের রসায়নবিদ বার্জেলিয়াস এই ক্যালিয়াম নামটি দেন।
46 Au চিহ্ন দ্বারা কোন মৌলকে প্রকাশ করা হয়?
সিলভার
আর্গন
গোল্ড
মার্কারি
সোনার চিহ্ন Au যা লাতিন শব্দ Aurum থেকে এসেছে। Aurum শব্দটি Aurora থেকে উৎপত্তি লাভ করেছে যার অর্থ হলো ভোর।
47 আর্জেন্টাম বলতে বোঝায়
কপার
সিলভার
আয়রন
আর্সেনিক
রুপো বাস সিলভার এর ল্যাটিন নাম আর্জেন্টাম (Argentum) । এর প্রথম ও তৃতীয় অক্ষর নিয়েই সিলভারের চিহ্ন (Ag) ।
48 প্রকৃতিতে মৌলের সংখ্যা
96 টি
105 টি
92 টি
94 টি
বর্তমানে প্রাকৃতিক মৌল ৯৪ টি। পশ্চিমবঙ্গ সরকার দ্বারা প্রকাশিত বইয়ের সর্বশেষ সংশোধনীতে ৯৪ টি উল্লেখ করা হয়েছে এর আগের বইয়ে যা ৯২ টি ছিল।
49 কোন চিহ্নটি কোন মৌলকে বোঝায় না?
Cr
CO
Cu
Ca
CO কোন মৌলের চিহ্ন নয় বরং এটি কার্বন মনোক্সাইড এর সংকেত। Cr - ক্রোমিয়াম, Cu - তামা, Ca - ক্যালসিয়াম।
50 O2 এর পারমাণবিকতা
1
2
4
3
কোন মৌলের একটি অনুতে যতগুলি পরমাণু থাকে তাকে সেই মৌলের পারমাণবিকতা বলে। অক্সিজেনের একটি অণুর দুটো পরমানু দ্বারা গঠিত। ডাই অক্সিজেনের পারমানবিকতা 2।
51 হাইড্রোজেন সালফাইডের অণুতে হাইড্রোজেন পরমাণুর সংখ্যা কত?
1
2
3
4
H2S এর অনুতে দুটি হাইড্রোজেন ও একটি সালফার পরমাণু থাকে।
52 নাইট্রোজেনের একটি অণুতে কয়টি পরমাণু থাকে?
1 টি
2 টি
2 টি
4 টি
নাইট্রোজেন, হাইড্রোজেন, অক্সিজেন ইত্যাদির পারমাণবিকতার ২। অর্থাৎ এই গ্যাস গুলির অণুতে দুটি করে পরমাণু থাকে।
53 ফসফরাস পেন্টাক্লোরাইডে ক্লোরিন পরমাণুর সংখ্যা কত?
1 টি
2 টি
3 টি
5 টি
P2O5 - এ ক্লোরিন এর পাঁচটি পরমাণু রয়েছে।
2 জলের সংকেত হলো -
H2O
H2O2
O2H2
H3O
জলের অনুতে দুইটি হাইড্রোজেন পরমাণু ও একটি অক্সিজেন পরমাণু থাকে। জলের সংকেত H2O
54 ম্যাঙ্গানিজ ডাই অক্সাইডের সংকেত হলো -
MnO2
KMnO4
K2SO4
MnO
MnO2 একপ্রকার ধনাত্মক অনুঘটক যা অক্সিজেন প্রস্তুতিতে বিক্রিয়ার বেগ বাড়িয়ে দিতে সাহায্য করে।
55 অ্যামোনিয়ার সংকেত হল
NH4
NH3
NH2
NH
অ্যামোনিয়ার সংকেত NH3 । অ্যামোনিয়ার অণুতে একটি নাইট্রোজেন পরমাণু তিনটি হাইড্রোজেন পরমাণুকে সমযোজী এক বন্ধন দিয়ে ধরে থাকে।
56 ফসফরাস ট্রাইক্লোরাইড এর সংকেত কি?
CO2
PCl3
SO3
PCl5
ফসফরাস ট্রাইক্লোরাইড কীটনাশক প্রস্তুতিতে ব্যবহার হয়।ফসফরাস ট্রাইক্লোরাইড প্রথম 1808 সালে ফরাসি রসায়নবিদ জোসেফ লুই গে-লুসাক এবং লুই জ্যাক থেনার্ড সর্বপ্রথম ফসফরাস ট্রাই ক্লোরাইড প্রস্তুত করেন।
57 2O2 - বলতে কি বোঝায়?
দুটি অক্সিজেন পরমাণু
দুটি অক্সিজেন অণু
চারটি অক্সিজেনের পরমাণু
চারটি অক্সিজেন পরমাণু
দুটি অক্সিজেনের অনু যদিও চারটি অক্সিজেন পরমাণু দ্বারা গঠিত তবে এক্ষেত্রে চারটি অক্সিজেন পরমাণু পৃথক নেই তাই এটি অবশ্যই দুটি অক্সিজেন অণু উত্তর হবে।
58 প্রদত্ত কোনটি ভুল ?
O2
2O
$\frac{1}{2}$O
O
পরমাণু কখনো ভগ্নাংশে হয় না। তাই $\frac{1}{2}$O পাওয়া সম্ভব নয়।
59 হাইড্রোজেন অণুর সংকেত কোনটি?
H
2H
H2
$\frac{1}{2}$H
হাইড্রোজেন অণুতে দুটি হাইড্রোজেন পরমাণু থাকে।
60 সাদা ফসফরাসের একটি অণুতে উপস্থিত পরমানুর সংখ্যা কত?
1
2
3
4
সাদা ফসফরাসের একটি অণুতে 4 টি পরমাণু থাকে।
61 N2O - তে N এর যোজ্যতা কত?
0
1
2
3
নাইট্রোজেন এর যোজ্যতা তিন। একটি নাইট্রোজেন পরমাণু তিনটি হাইড্রোজেন এর সঙ্গে সমযোজী বন্ধন তৈরি করতে পারে।
62 অ্যামোনিয়া (NH3) তে হাইড্রোজেনের যোজ্যতা কত?
1
2
3
4
অ্যামোনিয়া (NH3) তে হাইড্রোজেনের যোজ্যতা 1 এবং নাইট্রোজেনের যোজ্যতা 3 ।
63 ধোঁয়া হল -
কঠিন ও তরলের মিশ্রণ
কঠিন ও গ্যাসের মিশ্রণ
কঠিন ও কঠিন এর মিশ্রণ
গ্যাস ও গ্যাসের মিশ্রণ
কঠিন ও গ্যাসের মিশ্রণ হল ধোয়া। কার্বন ডাই অক্সাইড গ্যাসের সঙ্গে সূক্ষ্ম কার্বন কণা মিশে ধোঁয়া তৈরি হয়।
64 তুঁতে -
জলে দ্রাব্য
জলে অদ্রাব্য
কেরোসিনের দ্রাব্য
জলে ভেসে বেড়ায়
dice
তুঁতে বা কপার সালফেট জলে দ্রবীভূত হয়। এর সংকেত CuSO4
65 তরলে গ্যাসের দ্রবণের উদাহরণ হল -
শরবত
সোডা ওয়াটার
ধোয়া
দুধ
সোডা ওয়াটার এ জলে কার্বন-ডাই-অক্সাইডকে দ্রবীভূত করা হয়।
66 জল ও নুনের মিশ্রণের ক্ষেত্রে কোন কথাটি ঠিক?
মিশ্রন থেকে কোনভাবেই জল ও নুন কে আলাদা করা যাবে না
মিশ্রণের জল ও নুনের ধর্ম বজায় থাকে না
মিশ্রণকে ফিল্টার করে জল ও নুনকে আলাদা করা যাবে
জল দ্রাবক, নুন দ্রাব
বাকি তিনটি বক্তব্য ভুল। জল ও নুনকে পাতন প্রক্রিয়ায় পৃথক করা যায়। এই মিশ্রণকে ফিল্টার কাগজ দ্বারা পৃথক করা যায় না।
67 দ্রবন হল একটি
যৌগ
মৌল
মিশ্র পদার্থ
বিশুদ্ধ পদার্থ
দ্রবন হল মিশ্র পদার্থ। উদাহরণ হিসেবে চিনির শরবতের চিনি হল দ্রাব এবং জল হল দ্রাবক।
68 ওয়াটার ফিল্টার এ জল পরিস্থিত করতে ব্যবহার করা হয়
ফিল্টার পেপার
পার্সমেন্ট পেপার
ফিল্টার ক্যান্ডেল
অর্ধ ভেদ্য পর্দা
ওয়াটার ফিল্টার এর মধ্যে ফিল্টার ক্যান্ডেল থাকে যা জলের মধ্যে থাকা ধুলি, বালি ও কাদার কণাকে দূরে রাখে।
69dice
পরিস্রাবণ প্রক্রিয়ায় ফিল্টার কাগজে পড়ে থাকা কঠিন পদার্থকে বলে -
পরিশ্রুত
অবশেষ
কেলাস
পলি
পরিস্রাবণ প্রক্রিয়ায় যে পরিষ্কার তরল গ্রাহক পাত্রে জমা হয় তাকে পরিশ্রুত বলে। কাদা গোলা জলের পরিস্রাবণ এরপর পরিশ্রুত হিসাবে পরিষ্কার জল এবং অবশেষ হিসাবে কাদা পাওয়া যায়।
70 বালি ও জলের মিশ্রণ পৃথক করতে ব্যবহার করা হয় -
আস্রাবণ
পরিস্রাবণ
কেলাসন পদ্ধতি
ঊর্ধ্বপাতন
আস্রাবণ: জল ও জলে অদ্রাব্য বালির মিশ্রণ
পরিস্রাবণ: কাদাগোলা জল
কেলাসন: তুতের জলীয় দ্রবণ থেকে তুঁতের কেলাস তৈরি
71 তরল মিশ্রিত কোন অদ্রাব্য কঠিন পদার্থের সূক্ষ্ম কণাগুলোকে ফিল্টার কাগজের সাহায্যে ছেঁকে ওই তরল থেকে পৃথক করার পদ্ধতি কে বলে -
আশ্রাবণ
পরিস্রাবণ
কেলাসন
ঊর্ধ্বপাতন ঠিকানা
আশ্রাবণ প্রক্রিয়ায় তরলে কঠিন পদার্থ গুলিকে থিতিয়ে পড়তে সময় দেওয়া হয়।
72 সমুদ্রের জল বা নুন জলের মিশ্রণ থেকে নুনকে আলাদা করা হয় কোন প্রক্রিয়ায়?
ব্যাপন
পরিস্রাবণ
কেলাসন
অভিস্রবণ
কেলাসন পদ্ধতির ধাপ
১. একটি পাত্রে নুন জল নিয়ে ফোটাতে হবে।
২. সময়ের সঙ্গে সঙ্গে জল বাষ্পভূত হয়ে পাত্র থেকে নির্গত হতে থাকে এবং নুন জলের দ্রবণ ক্রমশ গাঢ় হতে থাকে ।
৩. নুন জল বেশ গাঢ় হয়ে গেলে সেটিকে না নাড়িয়ে ধীরে ধীরে ঠান্ডা করা হলো।
৪. বেশ কিছুক্ষণ পরে সাদা নুন এর কেলাস পাওয়া যাবে।
73 সাধারণ তাপমাত্রায় উবে যাবে -
ন্যাপথলিন
বরফ
খাদ্য লবণ
চিনি
ন্যাপথালিন উদ্বায়ী পদার্থ। ন্যাপথালিন সরাসরি কঠিন থেকে বাষ্পে পরিণত হয়। ন্যাপথালিন ছাড়াও নিশাদল বা অ্যামোনিয়াম ক্লোরাইড (NH4) একটি উদ্বায়ী পদার্থ।
74 নিচের কোন কথাটি মিথ্যা?
মৌলিক পদার্থের ক্ষুদ্রতম কণা কে বলা হয় পরমাণু।
পরমাণু জুড়ে অণু তৈরি হয়।
ভিন্ন মৌলের পরমাণু জুড়লে যৌগের অণু তৈরি হয়।
কার্বন টেট্রাক্লোরাইড অণুতে তিনটি ক্লোরিন পরমাণু আছে
ডাই : ২ | ট্রাই : ৩ | টেট্রা : ৪ | পেন্টা : ৫
টেট্রাক্লোরাইড বলতে চারটি ক্লোরিন পরমাণু বোঝায়। কার্বন টেট্রাক্লোরাইড এর সংকেত CCl4
75 জল ও চিনির মিশ্রণের ক্ষেত্রে কোন কথাটি ঠিক?
জল দ্রাব এবং চিনি দ্রাবক
এদের ফিল্টার করে আলাদা করা যায়
এদের চুম্বকের সাহায্যে আলাদা করা যায়
জল দ্রাবক এবং চিনি দ্রাব
দ্রবণে যে পদার্থটি বেশি থাকে সেটি দ্রাবক। অন্যভাবে বললে দ্রবণ দ্রাবকের অবস্থা গ্রহণ করে। যেমন চিনির শরবত হল দ্রবণ। এই দ্রবন জলের তরল অবস্থা গ্রহণ করছে তাই জল এখানে দ্রাবক এবং চিনি হল দ্রাব।
লোহা ও বালির গুড়োর মিশ্রণ কে আলাদা করতে চুম্বকের সাহায্য নেওয়া হয়।

💠ষষ্ঠ শ্রেণি পরিবেশ ও বিজ্ঞান অধ্যায় - ৩💠

কিভাবে শুরু করবে অনলাইন মক টেস্ট?

1. প্রথমে নিচের ' Start Mock Test ' বাটনে ক্লিক কর।
2. তারপর তোমার উত্তর সিলেক্ট কর এবং ' Next Question ' বাটনে ক্লিক কর।
3. সমস্ত প্রশ্ন শেষ হওয়ার পর রেজাল্ট বোর্ড দেখতে পাবে।

Time's Up
score:

Quiz Result

Total Questions:

Attempt:

Correct:

Wrong:

Percentage:

বাম দিক ও ডান দিক মেলাও

বামদিক ডানদিক
অক্সিজেন : 1. যৌগিক পদার্থ
খাবার লবণ : 2. অধাতু
লোহা : 3. সংকর ধাতু
কাসা : 4. ধাতু

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Please Comment , Your Comment is Very Important to Us.